ঢাকাবৃহস্পতিবার , ১৯শে মে, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আবহাওয়া
  3. আমাদের পরিবার
  4. আর্ন্তজাতিক
  5. ইসলামী জীবন
  6. এনায়েতপুর
  7. কক্সবাজার
  8. করোনা আপডেট
  9. খেলাধুলা
  10. চাকরি-বাকরি
  11. জাতীয়
  12. নাগরিক সংবাদ
  13. পাঁচমিশালি
  14. বরিশাল বিভাগ
  15. বাংলাদেশ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ভোটের মাধ্যমেই পৌর আওয়ামীলীগের সঠিক নেতৃত্ব চান তৃণমূল নেতাকর্মীরা

যুগের কথা ডেস্ক
ফেব্রুয়ারি ৩, ২০২২ ১২:০১ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

সায়েম উদ্দিনঃ  আগামী ০৬ ফেব্র“য়ারী (রবিবার) সিরাজগঞ্জ পৌর আওয়ামীলীগের সম্মেলনকে ঘিরে আবারো সরব হয়ে উঠেছে সিরাজগঞ্জের আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা। পৌর আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনকে কেন্দ্র করে নানা রঙের ব্যানার, ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে শহরের প্রতিটি সড়ক। শহরে চলছে নির্বাচনী উৎসবের আমেজ।

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কার্যনির্বাহী সংসদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী চলতি মাসেই জেলা, উপজেলা, সদর থানা আর পৌর আওয়ামীলীগের চারটি সম্মেলন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে জেলা আওয়ামীলীগ। দুই দফা তারিখ পেছানোর পর পৌর আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে চূড়ান্ত তারিখ নির্ধারিত হয়েছে আগামী ৬ ফেব্র“য়ারী।
প্রার্থীরা ইতোমধ্যেই মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। দোয়া ও ভোট চাইতে প্রত্যেক প্রার্থীই এখন গণসংযোগ ও মতবিনিময় সভায় ব্যস্ত। শীত উপেক্ষা করেই ভোর থেকে রাত পর্যন্ত তারা প্রতিটি ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে গিয়ে নেতা-কর্মীদের নিয়ে নিজেদের মাঠ গোছাতে ব্যস্ত সময় পার করছেন।

পৌর আওয়ামীলীগের সম্মেলনে সভাপতি পদে দুইজন ও সাধারণ সম্পাদক পদে তিনজন ইতোমধ্যেই মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন। এরা হলেন- সভাপতি পদে সিরাজগঞ্জ পৌর আওয়ামীলীগের বর্তমান সভাপতি ও জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক, বারবার কারা নির্যাতিত, ত্যাগী, তৃণমুল আওয়ামীলীগের নেতা হেলাল উদ্দিন ও পৌর আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আসাদ উদ্দিন পবলু।

সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থীরা হলেন, বর্তমান সাধারণ সম্পাদক দানীউল হক মোল্লা, জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো: সেলিম আহমেদ ও পৌর আওয়ামীলীগের সিনিয়র যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক ওয়াছ করোনী লকেট।

পৌর সম্মেলন সফল ও স্বার্থক করার জন্য সিরাজগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে। জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি পৌর মেয়র সৈয়দ আব্দুর রউফ মুক্তাকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার, জেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ ভূইয়া ও জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আব্দুল বারী সেখ কে নির্বাচন কমিশনার করে গঠনতন্ত্র মোতাবেক নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়েছে।
পৌর আওয়ামীলীগের সম্মেলনে ৩৭১ জন কাউন্সিলর ভোটের মাধ্যমে তাদের নতুন নেতা নির্বাচন করার জন্য উন্মুখ হয়ে আছেন। কাউন্সিলররা ভোটের মাধ্যমে তাদের নেতা নির্বাচন করতে চান। তৃনমূল আওয়ামীলীগতে সুসংগঠিত করতে প্রত্যক্ষ ভোটে সঠিক নেতৃত্ব বেছে নিতে পারবেন বলে আশা করছেন প্রত্যেক কাউন্সিলররা।
ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের নেতা আলম বলেন, যে নেতার নেতৃত্বে আমরা সকল আন্দোলন সংগ্রামে অংশগ্রহন করেছি, ভোটের মাধ্যমে আমরা তাকেই নির্বাচিত করবো ইন-শা-আল্লাহ।

০৫ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি ফজলুল হক ফজলু বলেন, তৃণমূলকে সংগঠিত করতে হলে কাউন্সিলরদের ভোটাধিকারের মাধ্যমে আমরা নেতা চূড়ান্ত করতে চাই।

০৫ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল করিম বলেন, পৌর আওয়ামীলীগ একটি পরিশুদ্ধ প্লাটফর্ম। এখানে যোগ্য সংগ্রামী নেতা দরকার, যিনি তৃনমূল আওয়ামীলীগতে সুসংগঠিত করতে পারবে। এই নির্বাচন কে ঘিরে শহরের রাজনীতি, আসন্ন জাতীয় নির্বাচনেও অনেক প্রভাব বিস্তার করবে। তাই আমরা চাই ভোটের মাধ্যমে এখানে যেনো সুন্দর নেতৃত্ব বের হয়ে আসে
অভিজ্ঞতার আলোকে পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক পদপ্রার্থী দানিউল হক মোল্লা বলেন, বিগত সময়ে কখনো সমঝোতার ভিত্তিতে আবার কখনো প্রত্যক্ষ ভোটের মাধ্যমে নেতা নির্বাচিত হয়েছে। তবে আওয়ামীলীগ এখন অনেক সংগঠিত। সিরাজগঞ্জ পৌর আওয়ামীলীগ এক সময় খুবই জনাজীর্ন ছিল। আমি দীর্ঘদিন পৌর আওয়ামীলীগের সাথে জড়িত। প্রয়াত নেতা মোহাম্মদ নাসিমের দিক নির্দেশনায় নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে এই পৌর এলাকাকে আমি সংগঠিত করেছি। আমি বিশ্বাস করি কাউন্সিলরদের ভোটের মাধ্যমে আবারো সঠিক নেতৃত্ব পাবে এই পৌর আওয়ামীলীগ।

পৌর আওয়ামীলীগের আরেক সাধারন সম্পাদক পদপ্রার্থী সেলিম আহমেদ বলেন, আওয়ামীলীগ একটি গণতান্ত্রিক দল। গণতান্ত্রিক দল হিসেবে পৌর আওয়ামীলীগের নির্বাচন। পৌর নেতৃবৃন্দ ও ওয়ার্ড নেতৃবৃন্দের ভোটের মাধ্যমে নেতা নির্বাচন করবে। আমি মনে করি পৌর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করলে কর্মীদের সুসংগঠিত করে শহর আওয়ামীলীগকে শক্তিশালী সংগঠনের পরিণত করতে পারব।
শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে পৌর আওয়ামীলীগকে সুসংগঠিত করতে তৃণমুলের ভোট প্রার্থনা করে আরেক সাধারন সম্পাদক পদপ্রার্থী ওয়াছ করোনী লকেট বলেন, এই পৌর আওয়ামীলীগ যেন আদর্শিকভাবে গঠিত হয়, উজ্জীবীত হয় সে লক্ষ্যে কাজ করে যাবো।

পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি প্রার্থী হেলাল উদ্দিন বলেন, বিগত দিনে আমি পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি নির্বাচিত হয়েই সিরাজগঞ্জ শহরকে আওয়ামীলীগের দূর্গ হিসেবে গড়ে তুলেছি। আগামী দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে এই দুর্গকে ঐক্যবদ্ধ রাখতে তৃণমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা আমাকে পুনরায় ভোট দিয়ে আগামী ৬ ফেব্র“য়ারীতে আবারো সভাপতি নির্বাচিত করবে।
পৌর আওয়ামীলীগের আরেক সভাপতি প্রার্থী আসাদ উদ্দিন পবলু বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা যারা কাজ করছি, পাশাপাশি আমাদের আজকে যারা তৃণমূল কর্মী রয়েছে তারা বিভিন্ন কষ্টে রয়েছে। আমার বিশ্বাস আমি যদি নির্বাচিত হতে পারি তৃণমূল পর্যায়ে নেতাদের পাশে থেকে কাজ করে যাব।

পৌর আওয়ামীলীগের নির্বাচনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে জানিয়ে প্রধান নির্বাচন কমশিনার ও পৌর মেয়র সৈয়দ আব্দুর রউফ মুক্তা বলেন, এবার প্রত্যক্ষ নির্বাচন ছাড়া পৌর আওয়ামীলীগের নেতা নির্বাচন করার কোন সুযোগ নেই। সে লক্ষ্যেই তারা হাটছেন। সুষ্ঠু সুন্দর পরিবেশে তৃণমূলের নেতাকর্মীরা ভোটের মাধ্যমেই তাদের পছন্দের প্রার্থীকে বেছে নিতে পারবেন।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।